জামাল ভূঁইয়া ইস্যুতে ডিসিপ্লিনারি কমিটির সভা বুধবার

চলমান বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের আলোচনায় ছিল ভেন্যু। এখন হঠাৎ আলোচনায় এসেছে রেফারিং ও জামাল ভূঁইয়া ইস্যু। তৃতীয় রাউন্ডের শেষ ম্যাচে সাইফ স্পোর্টিংয়ের বিপক্ষে পেনাল্টি পায় শেখ রাসেল। ওই পেনাল্টি নিয়ে যথেষ্ট আপত্তি ছিল সাইফ স্পোর্টিংয়ের ফুটবলারদের। বিশেষ করে অধিনায়ক জামাল এই পেনাল্টির সিদ্ধান্ত মেনেই নিতে পারছিলেন না।

সেই ম্যাচের রেফারি ও ম্যাচ কমিশনারের রিপোর্টে অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া সহ কয়েকজন খেলোয়াড়ের অসদাচরণের বিষয় উল্লেখ ছিল। আজ মঙ্গলবারের মধ্যে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবকে সেই দিনের ঘটনার ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছিল। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ব্যাখ্যা দিয়েছে ক্লাবটি।

আজ বাফুফে ভবন প্রাঙ্গনে ক্লাবটির সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান সুমন বলেন, ‘আমরা আমাদের চিঠিতে সেই ম্যাচের বিষয়গুলো উল্লেখ করেছি। বিশেষ করে অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার বিষয়টি বিশেষভাবে ব্যাখ্যা করেছি। আমরা ভিডিও এনালাইসিস করে, জামাল ভূঁইয়ার বিষয়সহ সব কিছু বিবেচনা করে আমাদের ক্লাবের অবস্থাটা আমরা ফুটবল ফেডারেশনকে ক্লিয়ার করেছি।’ ম্যাচ রেফারি ও কমিশনারের রিপোর্টে লাথি দেয়ার বিষয়টি থাকলেও ভিডিও ফুটেজে এ রকম কিছু পাওয়া যায়নি। জামালও বিষয়টি প্রত্যাখ্যান করেছেন।

রেফারি রিপোর্ট, ম্যাচের ফুটেজ, মিডিয়া রিপোর্ট নিয়ে আগামীকাল বিকেলে ডিসিপ্লিনারি কমিটির সভায় বসবে। সেই সভায় বিশ্লেষণের ভিত্তিতেই সিদ্ধান্ত আসবে বলে জানান বাফুফে সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ, ‘ডিসিপ্লিনারি কমিটি বিষয়টি পর্যালোচনা করবে। তারা চাইলে রেফারিদের সশরীরে উপস্থিত করানোর ব্যবস্থাও আমরা করব।’ রেফারিংয়ে অসন্তোষ হওয়ায় এ রকম ঘটনা ঘটছে।