৮ বছর পালিয়ে থেকেও শেষ রক্ষা হলো না

গাজীপুর জয়দেবপুরের চাঞ্চল্যকর নিজাম উদ্দিন হত্যা মামলার পরোয়ানাভুক্ত পলাতক আসামি সোহেলকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৪। বৃহস্পতিবার (১৭ মার্চ) রাতে ঢাকা জেলার আশুলিয়া এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। সোহেল দীর্ঘ আট বছর ধরে পলাতক ছিলেন।

শনিবার (১৯ মার্চ) র‌্যাব-৪ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাজেদুল ইসলাম গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। সোহেলকে আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

তিনি জানান, ২০১৪ সালের ২ ডিসেম্বর গাজীপুরের জয়দেবপুর থানার দক্ষিণ পানিশাইল এলাকায় নিজাম উদ্দিন নামে এক ব্যবসায়ীকে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে হত্যা করে একদল দুর্বৃত্ত। সোহেল সেই মামলার একজন চার্জশিটভুক্ত আসামি ছিলেন। কিন্তু আত্মসমর্পণ না করে গত আটবছর তিনি পালিয়ে বেড়াচ্ছিলেন। এ অবস্থায় আদালত তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সোহেল হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন। নিহতের সঙ্গে চাঁদা সংক্রান্ত বিরোধের জেরে এই হত্যাকাণ্ড বলেও জানিয়েছেন র‌্যাব-৪ এর এই কর্মকর্তা।

মামলার বিস্তারিত তুলে ধরে তিনি জানান, নিহত নিজাম উদ্দিন একজন জমি ব্যবসায়ী ছিলেন। সোহেলসহ তার সন্ত্রাসী বাহিনী নিজামের কাছে চাঁদা দাবি করতো। ভুক্তভোগী চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় সন্ত্রাসীরা বিভিন্ন সময়ে হত্যার হুমকি-ধামকিসহ শারীরিক নির্যাতন করে। ঘটনার রাত পৌনে ১১টায় কৌশলে তাকে জয়দেবপুর এলাকায় ডেকে নিয়ে দেশীয় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে হত্যা করা হয়।

পরে এ ঘটনায় নিজামের স্ত্রী বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।