রমজানে বাজার মনিটরিংয়ে থাকবেন ডিএনসিসির ১০ ম্যাজিস্ট্রেট

রমজানে বাজার মনিটরিং করতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ১০টি অঞ্চলে দশজন ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োজিত থাকবেন বলে জানিয়েছেন ডিএনসিসি মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম।

আজ শুক্রবার (১ এপ্রিল) ইতালি দূতাবাসের আয়োজনে ভিনটেজ অ্যান্ড ওল্ড কেয়ার ডে অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এই কথা বলেন।

রমজান মাসে বাজার মনিটরিংয়ে সিটি করপোরেশনের সব প্রস্তুতি রয়েছে জানিয়ে মেয়র বলেন, ভেজার খাদ্যদ্রব্য ছাড়াও বেআইনিভাবে কেউ যদি দাম বাড়ানোর চেষ্টা করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আগামী পরশু থেকে ম্যাজিস্ট্রেটরা মাঠে থাকবেন।

আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘ইতিহাস কথা বলে। আমাদের পুরনো মাটির ঘর, পুরনো পুকুর ঘাট, পুরনো বটগাছসহ এই পুরনো গাড়ি প্রদর্শনই শুধু নয়, এগুলোই ইতিহাসের কথা বলার অংশ। আজ ইতালি এবং বাংলাদেশের সম্পর্কের ৫০ বছর উপলক্ষে এমন চমৎকার অনুষ্ঠানের আয়োজন। আজ এখানে আমরা এমন কিছু গাড়ি দেখলাম, যেটা ১৯২৩ সালে নাটোরের রাণী ব্যবহার করেছেন। এটাই ইতিহাস। আবদুল হামিদ খান ভাসানীর ব্যবহার করা ঘড়ি রয়েছে এখানে।’

মেয়র বলেন, ‘ঢাকা শহরে আমরা থাকতে থাকতে একঘেয়েমি হয়ে যাচ্ছে। আমাদের পাড়া উৎসব করা দরকার। পাড়া মেলা করা দরকার। কমিউনিটিকে জানানো দরকার। এসব (আজকের প্রদর্শন করা) গাড়ি দিয়ে আমরা একটি র‌্যালির সিদ্ধান্ত নিয়েছি ঈদের পরে। এর মাধ্যমে আমরা ইতিহাস জানবো। ঈদের পরে যখন ঈদ পুনর্মিলনী হবে তখন আমরা এ আয়োজন করবো। আশা করি সবাই এটা দেখে আনন্দ পাবেন।’